বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক? জেনে নিন বিস্তারিত

দুর্ভাগ্যজনকভাবে বাংলাদেশের অধীকাংশই বেকার। আর তাদের ব্যবসা করার ক্ষেত্রে প্রয়োজন হয় বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক সম্পর্কে তথ্য জেনে নেয়া।

কারণ, ব্যবসা করার শুরুর দিকে আপনার হয়তো তেমন একটা ক্ষমতা নাও থাকতে পারে ব্যবসাটিকে ভালোভাবে দাঁড় করানোর জন্য। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশের রয়েছে বিনা জামানতে ঋণ দেয়ার মতো একটি ব্যাংক।

এই ব্যাংক থেকে ঋণ নেয়ার ক্ষেত্রে আপনার কোনো রকমের জামানতের প্রয়োজন হবে না, অর্থাৎ আপনি বিনা জামানতে ঋণ সেবা উপভোগ করতে পারবেন।

কিভাবে এই ঋণ নেবেন? এবং এই রিলেটেড যাবতীয় ডিটেইলস জেনে নেয়ার জন্য আজকের এই আর্টিকেলের দিকে নজর রাখুন আশা করি সম্পূর্ণ তথ্য জেনে নিতে পারবেন।

বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক?

আমাদের মধ্যে অনেকেরই এরকম প্রশ্ন করতে দেখা যায় যে বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক? এর সঠিক জবাব হলো বাংলাদেশের বর্তমানে একটি মাত্র ব্যাংক বিনা জামানতে ঋণ দিয়ে থাকে।

আর বিনা জামানতে ঋণ দেয়ার প্রতিষ্ঠানটি নাম হল কর্মসংস্থান ব্যাংক। এই ব্যাংকটি মূলত বেকার জনগোষ্ঠীর এর সহায়তা করার লক্ষ্যে ১৯৯৮ সালে সর্বপ্রথম চালু করা হয়।

তবে আপনি যদি বিনা জামানতে ঋণ নিতে চান, তাহলে বিভিন্ন রকমের রিকোয়ারমেন্ট কিংবা নিয়মাবলীর মধ্যে করতে হবে। কারণ এই কোন কার্যক্রম কিছু নির্দিষ্ট মানুষের জন্য প্রযোজ্য।

তাহলে এবার দেখে নিন, কাদের জন্য বিনা জামানতে ঋণ কার্যক্রম প্রযোজ্য এবং আপনি তাদের মধ্যে রয়েছেন কিনা?

কারা পাবেন বিনা জামানতে ঋণ?

কর্মসংস্থান ব্যাংক থেকে আপনি যদি কোন রকমের জামানত ছাড়াই ঋণ নিতে চান, তাহলে আপনাকে যে সমস্ত রিকোয়ারমেন্ট এর মধ্যে পড়তে হবে সেগুলো নিচে মেনশন করা হলো।

মূলত, নিম্নে যে সমস্ত রিকোয়ারমেন্ট বিষয়টি তুলে ধরা হবে সেই রিকোয়ারমেন্ট বা সেই সমস্ত যোগ্য ব্যক্তি বিনা জামানতে ঋণ সেবা গ্রহণ করতে পারবেন।

  • সর্বনিম্ন ৫ম শ্রেণী পাস হতে হবে। যদিও পূর্বে ছিল ৮ম শ্রেণি।
  • আবেদনকারীর বয়স সর্বনিম্ন ১৮ বছর থেকে সর্বোচ্চ ৩০ বছরের মধ্যে হতে হবে। তবে ৪০ বছর শিথিলযোগ্য।
  • ঋণ পেতে হলে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর, বিসিক, বিডা, সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট ফাউন্ডেশনসহ (এসডিএফ) অন্যান্য সরকার অনুমোদিত প্রতিষ্ঠান থেকে প্রশিক্ষণ থাকতে হবে।

মূলত, উপরে উল্লেখিত রিকোয়ারমেন্ট গুলো যদি আপনার সাথে মিলে যায় তাহলে আপনি কর্মসংস্থান ব্যাংক থেকে বিনা জামানতে ঋণ সেবা নিতে পারবেন।

কত টাকা ঋণ নেয়া যাবে?

কর্মসংস্থান ব্যাংক থেকে বিনা জামানতে সর্বনিম্ন ৫ হাজার টাকা থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ৫ লক্ষ টাকা ঋণ নেয়া সম্ভব। এবার এই টাকার অংকের মধ্যে আপনার প্রয়োজনীয় পরিমাণ বেছে নিতে হবে।

এই ঋণ মূলত ৮% সরল সুদে দেয়া হবে। কিন্তু আপনি যদি কিস্তি দেয়ার ক্ষেত্রে কোনো রকমের খেলাপি করে থাকেন, তাহলে তা বাড়িয়ে ১০% করা হতে পারে।

কিভাবে বিনা জামানতে ঋণ নেবেন?

যদি উপরে উল্লেখিত সমস্ত বিষয়াদি আপনার সাথে মিলে যায় এবং আপনি যদি উপরে উল্লেখিত বিষয়টির সাথে একমত পোষণ করেন, তাহলে এবার জেনে নেয়া দরকার কিভাবে এই ঋণ সেবা নিবেন?

যেহেতু , এই ঋণ সেবা কর্মসংস্থান ব্যাংক কর্তৃক আপনি পাবেন, সে জন্য প্রথমত কর্মসংস্থান ব্যাংকের ঋণ নেয়ার আবেদন ফরম রয়েছে সেটি ফিলাপ করে নিতে হবে।

আর এই ঋণ নেয়ার ক্ষেত্রে যে ফরম রয়েছে এবং আরো যে সমস্ত যাবতীয় ডিটেলস রয়েছে সেগুলো সম্পর্কে জেনে নেয়ার জন্য তাদের কন্টাক্ট সেন্টারে যোগাযোগ করুন।

নিচে কর্মসংস্থান ব্যাংকের লোন সংক্রান্ত যাবতীয় ডিটেইলস জেনে নেয়ার জন্য যে কন্টাক্ট সেবা পাবার উপায় রয়েছে সেগুলো মেনশন করা হলো।

  • টেলিফোন নাম্বারঃ 02-47111141
  • ফ্যাক্সঃ 880-2-9557594
  • ওয়েবসাইটঃ Website
  • ইমেইলঃ info@kb.gov.bd

আর উপরে উল্লেখিত কন্টাক্ট ডিটেইলস এর মাধ্যমে খুব সহজেই আপনি কর্মসংস্থান ব্যাংকের যে সমস্ত কাস্টমার প্রতিনিধি রয়েছেন তাদের সাথে কথা বলে নিতে পারবেন।

বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক এর সম্পর্কে আশা করি আপনি পরিপূর্ণ জেনে নিতে পেরেছেন। এবং ঋণ নেয়ার ক্ষেত্রে উপরে উল্লেখিত শর্তাবলী এবং নিয়ম মনে রাখবেন।

1 thought on “বিনা জামানতে ঋণ দেয় কোন ব্যাংক? জেনে নিন বিস্তারিত”

  1. Md. Saidur Rahman Shuvo

    খুব ভালো লাগলো আপনাদের এই উদ্যোগ সম্পর্কে জেনে জানতে পেরে খুবই আগ্রহী এবং খুবই সরল এবং খুবি সহজ দোয়া করি আপনাদের জন্য এবং আমার জন্য দোয়া করবেন যেন আমি এই ধরনের উদ্যোগ নিতে পারে

Leave a Comment

Your email address will not be published.

Scroll to Top