এজেন্ট ব্যাংকিং কি? এজেন্ট ব্যাংকিং লাভ, সুবিধা এবং অসুবিধা

Advertisements

আমাদের মধ্যে এরকম অনেকেই রয়েছেন যারা কিনা এজেন্ট ব্যাংকিং সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নিতে চান অর্থাৎ এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের যে সমস্ত সুযোগ সুবিধা রয়েছে সম্পর্কে জেনে নিতে চান।

Agent ব্যাংকিং সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জেনে নিতে চান তাহলে আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে, এ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য কালেক্ট করে নিতে পারেন।

এখানে, আলোচনা করা হবে ব্যাংকিং কি এবং Agent ব্যাংকিং সুবিধা, অসুবিধা এবং এর লাভ সম্পর্কে। আপনি যদি এই সম্পর্কে জেনে নিতে চান, তাহলে আজকের এই আর্টিকেলটি একদম শেষ পর্যন্ত দেখে নিতে পারেন।

এজেন্ট ব্যাংকিং কি?

মূলত বাংলাদেশের যেকোন মানুষের কাছে ব্যাংকিং সেবা পৌঁছানোর জন্য একটি মাধ্যম হলো এজেন্ট ব্যাংকিং।

এই Agent ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে তৃণমূলের যে কোনো গ্রাহক ব্যাংকিং সেবা উপভোগ করতে পারবেন এবং এটি যেকোন জায়গায় স্থাপন করা সম্ভব।

মূলত যেকোনো জনগণের ব্যাংকিং সেবা পৌঁছে দেয়ার যে মাধ্যম রয়েছে, সেটিকে এজেন্ট ব্যাংকিং হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়।

এজেন্ট ব্যাংকিং এর সুবিধা কি?

আপনি যদি Agent ব্যাংকিং এর সংজ্ঞা জেনে নেন তাহলে এবার আপনি হয়তো নিশ্চয়ই এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের যে সমস্ত সুযোগ সুবিধা রয়েছে, সে সমস্ত সুযোগ সুবিধা সম্পর্কে জেনে নিতে চাইবেন।

এজেন্ট ব্যাংকিং করার ক্ষেত্রে সমস্ত সুযোগ সুবিধা আপনি উপভোগ করতে পারবেন যে সমস্ত সুযোগ সুবিধা গুলোর মধ্যে থেকে কয়েকটি নিচে তুলে ধরা হলো।

যে কোনো রকমের একাউন্ট খুলতে পারবেন, যেমন কারেন্ট একাউন্ট অথবা ডিপিএস অ্যাকাউন্ট।

টাকা জমা রাখতে পারবেন।

  • টাকা উত্তোলন করতে পারবেন।
  • বৈদেশিক রেমিটেন্স প্রদান করতে পারবেন।
  • বিল পরিশোধ করতে পারবেন।
  • ইন্টারনেট ব্যাংকিং সেবা প্রদান করতে পারবেন।
  • একাউন্ট ব্যালেন্সজেনে নিতে পারবেন।
  • ঋণের আবেদন গ্রহণ, বিতরণ ও কিস্তি সংগ্রহ করতে পারবেন।
  • সরকারের বিভিন্ন ভাতা প্রদান করতে পারবেন।
  • বীমা প্রিমিয়াম সংগ্রহ।
  • ক্লিয়ারিং চেক পেমেন্ট, ইত্যাদি।

উপরে উল্লেখিত সুযোগ-সুবিধাগুলো ছাড়াও আরো বিভিন্ন রকমের সুযোগ-সুবিধা এজেন্ট ব্যাংকিং এর মাধ্যমে পেতে পারেন।

এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের অসুবিধা

এরকম অনেকেই রয়েছেন যারা কিনা Agent ব্যাংকিংয়ের অসুবিধা সম্পর্কে জেনে নিতে চান, তবে এই বিষয়টি একেবারেই সত্য যে Agent ব্যাংকিং এ সেরকম কোন অসুবিধা নেই।

Agent ব্যাংকিং করার ক্ষেত্রে আপনি অসুবিধা বলতে এখানে কোন ফিক্সড লাভ নেই, অর্থাৎ আপনি কি যত বেশি কাস্টমার আকৃষ্ট করতে পারবেন, তত বেশি লাভ উপভোগ করতে পারবেন।

তবে এই বিষয়টা কে অসুবিধা বললে বোকামি হবে।

এজেন্ট ব্যাংকিং এর লাভ

এজেন্ট ব্যাংকিং করার মাধ্যমে আপনি কত টাকা লাভ করতে পারবেন সেটি মূলত নির্ভর করবে আপনার সর্বমোট লেনদেনের উপর।

এক্ষেত্রে আপনি যদি যে কোন একটি ব্যাংকের Agent হয়ে যান এবং Agent ব্যাংকিং কার্যক্রম পরিচালনা করেন তাহলে আপনি সেই ব্যাংকের দিকে যত বেশি মানুষকে আকৃষ্ট করতে পারবেন, আপনার মোট কমিশন পরিমাণ তত বেশি বৃদ্ধি পাবে।

অর্থাৎ হিসাব খুলতে পারবেন তত বেশি কমিশন পাবেন। এছাড়াও যত বেশি রেমিটেন্স পেমেন্ট দিতে পারবেন, তত বেশি কমিশন উপভোগ করতে পারবেন।

এক কথায় বলতে গেলে আপনার সর্বমোট লেনদেন এবং আপনার সার্ভিসিং এর উপর নির্ভর করবে আপনি কত টাকা আয় করতে পারবেন সেই বিষয়টি।

আর এটি হল মূলত, Agent ব্যাংকিং রিলেটেড যে কয়েকটি প্রশ্ন ছিল সেই কয়েকটি প্রশ্নের সঠিক উত্তর।

Also Read:

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

close
Scroll to Top